এখন রাত ১১:১৪ | আজ রবিবার | ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ | গ্রীষ্মকাল | ২৬শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১৭ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি

ফুলবাড়ীয়া প্রতিদিন

এগিয়ে থাকে, এগিয়ে রাখে

শিক্ষা সবশেষ

কর্মীসংকট মোকাবিলায় ভারতীয় শিক্ষার্থীদের দিকে তাকিয়ে জার্মানি

জার্মানিতে দক্ষ শ্রমিকের ঘাটতি দেখা দিতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। পর্যাপ্ত কর্মীর অভাব এবং বয়স্ক জনসংখ্যা বৃদ্ধির কারণেই এ আশঙ্কা। পর্যাপ্ত শ্রমিকের অভাব এবং বয়স্ক জনসংখ্যা বৃদ্ধির কারণে ২০৩৫ সালের মধ্যে জার্মানিতে ৭০ লাখ দক্ষ কর্মী ও শ্রমিকের ঘাটতি দেখা দিতে পারে। এ সমস্যা সমাধানে দেশটির শ্রমবাজারে ভারতের শিক্ষার্থীদের প্রবেশের বা অন্তর্ভুক্তির বিষয়টি সামনে এসেছে।

জার্মানিতে এ মুহূর্তে প্রায় ৭ লাখ চাকরির সুযোগ থাকলেও তা পূরণ হচ্ছে না। দেশটিতে বর্তমানে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির মাত্রা শূন্য দশমিক ৭ শতাংশে নেমে এসেছে। ১৯৮০-এর দশকে এটা ছিল ২ শতাংশ। এ সমস্যার সমাধান না হলে জার্মানির অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি শূন্য দশমিক ৫ শতাংশে নেমে যেতে পারে। জার্মানির অর্থমন্ত্রী রবার্ট হ্যাবেক জানিয়েছেন, এ সমস্যা সমাধানে অভিবাসন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারে। এ সমস্যা সমাধানে দেশটির শ্রমবাজারে ভারতীয় শিক্ষার্থীদের অন্তর্ভুক্তির বিষয়টি বিবেচনা করা হচ্ছে।

আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থীদের সুযোগ প্রদান
জার্মানির পরিসংখ্যান অফিসের তথ্য অনুসারে, জার্মান বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে এই মুহূর্তে প্রায় ৪৩ হাজার ভারতীয় শিক্ষার্থী পড়াশোনা করছেন। জার্মান একাডেমিক এক্সচেঞ্জ সার্ভিসের মুখপাত্র মাইকেল ফ্ল্যাকের মতে, দেশটির মোট শিক্ষার্থীর মধ্যে বিদেশি শিক্ষার্থীর সংখ্যা প্রায় ১৪ শতাংশ। তিনি জানিয়েছেন, আন্তর্জাতিক ছাত্ররা প্রায়ই ‘তথাকথিত যোগ্য অভিবাসী’ হয়। কারণ, তাঁরা ইতিমধ্যেই জার্মানিতে বাস করার পাশাপাশি জার্মান ভাষা শিখে ফেলেছেন। তিনি বলেছেন, ‘একই সময়ে আমরা জানি যে জার্মান ভাষা শেখা, জার্মান বিশ্ববিদ্যালয়ে নিজের পথ খুঁজে বের করা এবং শ্রমবাজারে আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থীদের প্রবেশ বিশেষ চ্যালেঞ্জের সৃষ্টি করবে।’